চীনা শ্রমিক করোনা পজেটিভ হওয়ায় বড়পুকুরিয়া কয়লাখনির কয়লা উত্তলন বন্ধ

দিনাজপুর প্রতিনিধি: সুবল রায়

দিনাজপুর বড়পুকুরিয়া কয়লাখনিতে ৫০ চীনা শ্রমিক করোনা পজেটিভ হওয়ায় আজ শনিবার সাময়ীক কয়লা উত্তলন বন্ধ করা রয়েছে। পজেটিভ চীনা শ্রমিকদের খনিতেই আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। খনিতে মোট ৩০২ জন চয়না শ্রমিক খনির অভ্যান্ততে কর্মরত রয়েছেন। এদিকে ২৫৩ জন চীনা শ্রমিকের কোভিড১৯ টেষ্টের জন্য নতুন করে নমুনা সংগ্রহ করে পিসিআর ল্যাবে পাঠানো হয়েছে। যার ফলাফল এখনো আসেনি। চীনা শ্রমিকদের সংস্পর্শে আশা স্থানীয় দেশি ৪৫০জন শ্রমিককে খনি থেকে বের করে দেয়া হয়েছে। তাদের কোভিড১৯ নেগেটিভ রেজাল্ট নিয়ে খনিতে পূনরায় কাজে যোগদান করতে দেয়া হবে বলে জানান কর্তৃপক্ষ।

কয়লাখনির এমডি সাইফুল ইসলাম গণমাধ্যমকর্মীদের জানান, ৫০ চায়না শ্রমিক করোনায় আক্রান্ত হওয়ার কারনে সাময়ীক ভাবে কয়লা উত্তলন বন্ধ রয়েছে। তবে আক্রান্তদের সংস্পর্শে না আসা ১০০জন শ্রমিক অভ্যান্তরে রক্ষনাবেক্ষনের কাজে নিয়োজিত রয়েছেন। নতুন ১৩০৬ নম্বর ফেজের বিভিন্ন মেশিনারিজ সেটআপসহ তিন দিনে প্রায় ৫হাজার মেট্রিক টন কয়লা উত্তলন করা হয়েছে। উত্তলন আবার স্বাভাবিক হতে ১০দিনের মত সময় লাগবে বলে জানান এই কর্মকর্তা।

উল্লেখ্য, উন্নয়ন কাজের জন্য কয়লাখনির ৎপাদন প্রায় মাস বন্ধ থাকার পর গত বুধবার ১৩০৬ নম্বর নতুন ফেজ থেকে আবার শুরু হয় কয়লা উত্তলন। নতুন এই ফেজে প্রায় লাখ মেট্রিক টন কয়লা মজুত আছে বলে ধারনা করছেন কর্তৃপক্ষ।

 

 

 

 

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button