প্রতারণার মামলায় দলিল লিখক গ্রেপ্তার!

আলফাজ সরকার আকাশ, শ্রীপুর(গাজীপুর) প্রতিনিধি

গাজীপুরের শ্রীপুরে ভুয়া দলিল তৈরি করে প্রতারণা ও জালিয়াতির মামলায় সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের দলিল লিখক কামরুজ্জামান আজমলকে গ্রেপ্তার করে আদালতে সোপর্দ করেছে থানা পুলিশ।

 

রোববার (২২ মে) দুপুরের দিকে তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে মোহনা টেলিভিশন অনলাইননকে নিশ্চিত করেছেন শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মনিরুজ্জামান মনির। এরআগে, শনিবার সন্ধ্যার দিকে পৌর শহরের চৌরাস্তা এলাকার স্বাধীন হোটেলের সামনে থেকে তাকে আটক করা হয়।

 

গ্রেপ্তার কামরুজ্জামান আজমল (৪০) পৌর এলাকার লোহাগাছ ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি রফিকুল ইসলামের ছেলে। জানা যায়, ভুয়া দলিল তৈরির ফলে প্রতারণার শিকার হয়ে উপজেলার কাওরাইদ ইউনিয়নের বেলদিয়া গ্রামের তৌহিদ নামের এক ভুক্তভোগী আদালতে সি.আর মামলা নং -৭৬৮/২১ দায়ের করেন। দীর্ঘদিন মামলার কার্যক্রম শেষে দলিল লিখক কামরুজ্জামান আজমলের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত।

 

মামলায় অন্যান্য আসামীরা জামিনে রয়েছেন বলে জানিয়েছেন পুলিশ। জমির কাগজ পত্র যাচাই-বাছাই করেছিলেন তেলিহাটি ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি আবু জাফর৷ তিনি বলেন, জমি কেনা-বেচার আগে আমার কাছে ওই জমির কাগজপত্র নিয়ে আসে উভয় পক্ষ। সেখানে দেখা যায়, ২০০৯-১০ সালের দিকে হেবা দলিল মূল্যে মালিকানা অর্জন করে নামজারি জমা দিয়ে খাজনা পরিশোধ করেন কামরুন্নেছা মমতাজ নামের একজন ভদ্র মহিলা। পরবর্তীতে ন্যাশনাল আইডি কার্ডে নাম জটিলতা দেখে তাদেরকে ইউনিয়ন পরিষদ থেকে প্রত্যায়ন নেওয়ার কথা বলা হয়। কিন্তু কামরুন্নেছা মমতাজ তার মা মৃত্যুর পরও জীবিত দেখিয়ে আরেকটি দলিল তৈরি করে। যেটি নিয়ে মামলা চলছে। আমার ক্রয়কৃত জমির মধ্যে কোনো ঝামেলা নেই। তাই মামলার বিষয়ে আমার জানার দরকার নেই।

 

শ্রীপুর সাবরেজিষ্ট্রি অফিসের দলিল লিখক সমিতির সভাপতি শাহজাহান মন্ডল বলেন, আসলে একটি দলিল তৈরিতে দাতা ও গ্রহিতার ভূমিকায় মূখ্য। সেখানে দলিল ভুল বা ভুয়া হওয়ার বিষয় লেখকরা তেমন ভাবে জড়িত থাকে না। তারপরও কেউ যদি ভুয়া দলিল তৈরি করে প্রতারণা করে এবং তা যদি আইনের মাধ্যমে প্রমানিত হয় তাহলে অবশ্যই দলিল লিখক সমিতির পক্ষ থেকেও শাস্তির ব্যবস্থা করা হবে।

 

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান মনির মোহনা টেলিভিশন অনলাইনকে বলেন, ভুক্তভোগী আদালতে সি আর মামলা দায়েরের পর আসামির বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হলে গতকাল রাতে কামরুজ্জামান আজমলকে গ্রেপ্তার করা হয়। রোববার দুপুরের দিকে তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button