জাতীয়

যত্রতত্র অনুমোদনহীন বেকারিতে তৈরি হচ্ছে খাদ্যপণ্য

শ্রীপুর প্রতিনিধি

গাজীপুরের শ্রীপুরে অনুমোদনহীন বেকারিতে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরি হচ্ছে খাদ্যপণ্য। নিয়ম নীতির তোয়াক্কা না করে বছরের পর বছর চলছে বিস্কুট, কেকসহ নানা খাবার উৎপাদন। এতে স্বাস্থ্যঝুঁকি বাড়ছে বলে জানান চিকিৎসকরা। আর খাদ্যে ভেজালরোধে অভিযান চলছে বলে দাবি করেছে প্রশাসন।

কারখানার অস্বাস্থ্যকর পরিবেশ দেখেই নষ্ট হবে খাওয়ার রুচি। গাজীপুরের শ্রীপুরে এমনই নোংরা পরিবেশে তৈরি হচ্ছে খাদ্যপণ্য। বিভিন্ন বেকারি কারখানায় খাবার তৈরিতে ব্যবহার হচ্ছে নিম্নমানের তেল এবং ক্ষতিকর কেমিক্যাল। পাত্রগুলোতে জমেছে ময়লার স্তর; হ্যান্ডগ্লাভস ব্যবহার করেন না শ্রমিকরা।

শ্রীপুরে খাদ্যপণ্য উৎপাদনকারী ছোট-বড় প্রায় ৩৫টি কারখানা রয়েছে। এরমধ্যে মাত্র ২টির রয়েছে বিএসটিআই অনুমোদন। এছাড়া কয়েকটি বেকারির রয়েছে সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে দেয়া কর্মচারীদের ফিটনেস সার্টিফিকেট।

এসব কারখানায় তৈরি লেবেলহীন কেক-রুটির বেচাকেনাও ভালো। শিশুরাও খাচ্ছে এসব খাবার। খাদ্যের মান কিংবা মেয়াদ সম্পর্কে জানেন না ক্রেতা-বিক্রেতারা।

ভেজাল ও নিম্নমানের খাবারে গ্যাস্ট্রিক-আলসার,ডায়রিয়াসহ নানা জটিল রোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকির কথা জানান উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা।

নিয়মিত এসব কারখানা পরিদর্শন করার দাবি করেন নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক।  

অবৈধ বেকারি কারখানার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানিয়েছে জেলা প্রশাসন।

শুধু কথার কথা নয়, নিরাপদ খাদ্য নিশ্চিতে ব্যবস্থা নেবে প্রশাসন, এমনটাই আশা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button